• শুক্রবার   ০৭ মে ২০২১ ||

  • বৈশাখ ২৪ ১৪২৮

  • || ২৬ রমজান ১৪৪২

প্রকৃতির কোলজুড়ে হাসছে অপরূপ কৃষ্ণচূড়া

মানিকগঞ্জ বার্তা

প্রকাশিত: ৪ মে ২০২১  

অন্য সময়ের মতো মানুষের হৈ-চৈ নেই। থেমে গেছে অসহ্য যত শোরগোল-কোলাহল। সেভাবে নেই গাড়ির শব্দ, ময়লা আবর্জনা। করোনার আতঙ্ক আর অবিরাম লকডাউনে যখন গোটা বিশ্ব স্থবির, তখন বেড়েছে কেবল প্রকৃতির অন্তরঙ্গতা। জেগে উঠেছে কৃষ্ণচূড়ার রক্তিমতা।

ডালে ডালে নতুন সবুজ পাতার সমারোহ। সবুজ সেই ডালির মধ্যে লাল কৃষ্ণচূড়ার চোখ ধাঁধানো সৌন্দর্য প্রকৃতিকে করে তুলেছে আরও নান্দনিক। আর প্রকৃতির এই যৌবনাবতী রূপ-রসের সৌন্দর্য শুধু প্রকৃতিপ্রেমীর কাছে নয়, পরিবেশ সচেতন ব্যক্তিদেরও করছে বিমোহিত।

সোমবার রাজধানীর সংসদ ভবনের পেছনে এবং চন্দ্রিমা উদ্যান ঘুরে দেখা গেছে তেমন দৃশ্যই। বৈশাখের কাঠফাটা রোদ্দুরেও কৃষ্ণচূড়া ফুল জানান দিচ্ছে তার সৌন্দর্যের বার্তা। সেসঙ্গে অন্যান্য বৃক্ষ তরুলতার সজীবতাও যেন লাফিয়ে বৃদ্ধি পাচ্ছে।

সরেজমিন ঘুরে দেখা যায়, রক্তরাঙা ফুল কৃষ্ণচূড়ার নয়নাভিরাম সৌন্দর্য সবুজ প্রান্তর, আঁকাবাঁকা পথ ও বাড়ির আঙ্গিনা ছাড়িয়ে রাঙিয়ে তুলেছে রাজধানীর পথ-প্রান্তর। বাংলা প্রকৃতির রূপরঙের প্রথম ঋতু গ্রীষ্মে নগরীর রাস্তার মোড়ে মোড়ে আর বিভিন্ন ভবন ও অফিস পাড়ায় কৃষ্ণচূড়ার লাল আভা সৃষ্টি করেছে বৈচিত্র্যময় পরিবেশ।

কৃষ্ণচূড়া ফুল বৈশাখের শুরুতেই চারিদিকে ছড়িয়ে দেয় তার রক্তরাঙা রূপ। কেবল গ্রামেই নয়, নগর জীবনেও মানুষের দৃষ্টির সীমানায় স্থান করে নিয়েছে রক্তরাঙা কৃষ্ণচূড়া। তাইতো এই ফুলের রক্তিম জাগরণ পথচারিদের মুহূর্তের জন্য হলেও শিহরণ জাগায়। রোদ্দুর দুপুরে কৃষ্ণচূড়ার ছায়া দেয় প্রশান্তি।  

এ বিষয়ে পথচারী আব্দুল্লাহ মুহাইমিনুল বলেন, বৈশাখের শুরুতেই নগরের দৃশ্যপট রমণীয় ও মোহনীয় করে তুলেছে রক্তরাঙা কৃষ্ণচূড়া ফুল। যে ফুল গাছের দিকে তাকালে চোখ জুড়িয়ে যায়। বৈশাখের কাঠফাটা রোদ্দুর দুপুরে কৃষ্ণচূড়ার ছায়া দেয় প্রশান্তি।

অপর এক পথচারী আইরিন সুলতানা বলেন, আমি প্রায় প্রতিদিনই এই পথ ধরে হাঁটি। এখন সকালে অথবা বিকেলের দিকে হাঁটতে আরও বেশি ভালো লাগে। তখন কেমন ফুলে ফুলে লাল হয়ে থাকে রাস্তা আর রাস্তার ধারের গাছগুলো। মহামারির কোনো আতঙ্ক স্পর্শ করতে পারেনি ওদের। গ্রীষ্মের এই নিস্প্রাণ রুক্ষতা ছাপিয়ে প্রকৃতিতে কৃষ্ণচূড়া নিজেকে মেলে ধরেছে আপন মহিমায়। যেন লাল রঙে কৃষ্ণচূড়ার পসরা সাজিয়ে বসে আছে প্রকৃতি।

সত্যিই তাই, কৃষ্ণচূড়া ফুলের অপরূপ সৌন্দর্য যে কারো চোখে এনে দেয় শিল্পের দ্যোতনা। বিশেষ করে গ্রীষ্মে যখন এই ফুল ফোটে, তখন সে প্রকৃতিপ্রেমীদের হাতছানি দেয়। সেই হাতছানিতে সাড়া দিয়ে কৃষ্ণচূড়ার অপরূপ রূপে মোহিত হয়ে ওঠে ভাবুক মন।