• শনিবার   ১৯ জুন ২০২১ ||

  • আষাঢ় ৬ ১৪২৮

  • || ০৯ জ্বিলকদ ১৪৪২

মলম পার্টির ৩ সদস্য আটক

মানিকগঞ্জ বার্তা

প্রকাশিত: ১০ জুন ২০২১  

ধামরাই থেকে মলম পার্টি ও ছিনতাইকারী চক্রের তিন নারী সদস্যকে আটক করেছে থানা পুলিশ। বুধবার তাদের ধামরাই থানা থেকে আদালতে পাঠানো হয়। এর আগে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ধামরাই পৌরসভার উত্তরপাড়া দোয়েল ক্লাব সংলগ্ন রাস্তা থেকে তাদের আটক করা হয়।

পুলিশ জানায়, সুইটি বেগম নামে এক মহিলা যাত্রী ধামরাই বাজারে যাওয়ার উদ্দেশ্যে ইসলামপুর থেকে সিএনজিতে উঠে। ঐ সিএনজিতে পূর্বেই আরো ৩ জন মহিলা যাত্রী বসা ছিল। সিএনজি যোগে পৌরসভার উত্তরপাড়া এলাকায় পৌছলে ভিকটিম সুইটি বেগমের চোখে মুখে মরিচের গুঁড়ো দিলে জোরে চিৎকার দেয়। সেই চিৎকার শুনে স্থানীয়রা সিএনজি থামিয়ে ওই ৩ নারীকে আটক করে। এসময় সিএনজি চালক পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়রা ধামরাই থানায় ফোন দিলে পুলিশ এসে ওই তিন নারী ও সিএনজি থানায় নিয়ে যায়। সুইটিকে অপহরণের চেষ্টা করায় তাদের বিরুদ্ধে একটি অপহরণ মামলা দায়ের করা হয়েছে। বুধবার তাদের তিনজনকেই আদালতে পাঠানো হয়েছে।

আটককৃতরা হলো- মানিকগঞ্জ জেলার সাটুরিয়া থানার কামতা গ্রামের লিয়াকত আলীর দুই মেয়ে শিরিন ও সালমা। অপরজন, একই জায়গার আব্দুস সালামের মেয়ে সুমি আক্তার। তারা দির্ঘদিন ধরে এই পেশার সাথে জড়িত।

 
ভুক্তভোগী সুইটি বেগম জানান, ইসলামপুর থেকে ধামরাই বাজারের উদ্দেশ্যে সিএনজিতে উঠলে সিএনজিতে থাকা ৩ মহিলা আমার চোখে মুখে মরিচের গুঁড়ো দেয়। যার কারণে আমি চিৎকার করি। তখন দোয়েল একাডেমির সামনে স্থানীয় জনতা আমাকে উদ্ধার করে চোখে মুখে পানি দিলে আমি একটু স্বাভাবিক হই। তখন উপস্থিত সবাইকে ঘটনা খুলে বললে তারা থানায় ফোন দিয়ে ওই তিন নারীকে ধরিয়ে দেয়।

এ বিষয়ে ধামরাই থানার উপ- পরিদর্শক রশিদ উদ্দিন বলেন, মলম পার্টির ৩ নারী সদস্যকে আটক করা হয়েছে। তারা সুইটি নামে আরেক নারীকে অপহরণের চেষ্টা করছিল। তাদের নামে একটি অপহরণ মামলা হয়েছে।