• মঙ্গলবার   ২৪ মে ২০২২ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ৯ ১৪২৯

  • || ২২ শাওয়াল ১৪৪৩

সড়ক নয় যেন মরণফাঁদ

মানিকগঞ্জ বার্তা

প্রকাশিত: ১৪ মে ২০২২  

খানাখন্দে ভরা সাভারের আশুলিয়ার ডিইপিজেড-ভাদাইল সড়ক। সামান্য বৃষ্টিতে ডুবে যায় সড়কের অন্তত দুই কিলোমিটার এলাকা। বার বার আশ্বাস দিলেও সড়কটি সংস্কার না করায় দুর্ভোগ পোহাচ্ছেন এ এলাকার হাজার হাজার মানুষ।

সরেজমিনে দেখা যায়, সড়কের বিভিন্ন এলাকা বৃষ্টির পানিতে তলিয়ে গেছে। কেউ বলছেন এসব পানি বৃষ্টির। আবার কেউ বলছেন বাসা-বাড়ির সুয়ারেজের। ড্রেনেজ ব্যবস্থা না থাকায় সড়কের পাশের বাড়ির মালিকরা পানি ছেড়ে দিয়েছেন। এতে পানিতে ভাসছে নানা ধরনের ময়লা।

পথচারী আফজাল হোসেন। কাজ করেন ডিইপিজেডের একটি কারখানায়। এ সড়ক দিয়ে প্রতিদিন দুবার আসা-যাওয়া করতে হয় তাকে। তিনি বলেন, সারাদিন কারখানায় যে পরিশ্রম করি তার চেয়ে বেশি পরিশ্রম হয় সড়কটি দিয়ে চলাচল করতে। বৃষ্টি এলেই ময়লা পানি মাড়িয়ে পথ চলতে হয়।

কিন্ডার গার্ডেন স্কুলের শিক্ষিকা শিউলি আক্তার ক্ষোভ নিয়ে বলেন, আশপাশের সবচেয়ে ব্যস্ত সড়ক এটি। তবুও কারো কোনো মাথা ব্যথা নেই।সড়কের পাশের মুদি দোকানি মমিন মিয়া বলেন, বৃষ্টি হলে পানি আর না হলে ধুলা। এ নিয়ে খুবই কষ্টে সময় পার করছি। সামান্য বৃষ্টি হলেই দোকানে পানি ঢুকে যায়। এক যুগ সময় পার হলেও সড়কটি মেরামতের কোনো নাম নাই। আবার ড্রেনেজ ব্যবস্থাও নাই।

ধামসোনা ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম বলেন, ইতোমধ্যে সড়কের টেন্ডার সম্পন্ন হয়েছে। ঠিকাদার রাস্তার ড্রেনের জন্য পাইপ লাইন নির্মাণ করছেন। আশা করছি চলতি মাসের ২০-২৫ তারিখের মধ্যে প্রথমে সড়কে ড্রেনের কাজ শুরু হবে। এরপর ১৮ ফিট প্রস্থের সড়কটি আরসিসি ঢালাই দিয়ে নির্মাণ করা হবে।

সাভার উপজেলা প্রকৌশলী সালেহ হাসান প্রামাণিক জানান, অলরেডি ওয়ার্ক অর্ডার দেওয়া হয়েছে। শিগগিরই ঠিকাদারকে সবকিছু বুঝিয়ে দেওয়া হবে। আশা করি আগামী সপ্তাহের মধ্যে কাজ শুরু হবে।