• রোববার   ২২ মে ২০২২ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ৮ ১৪২৯

  • || ২০ শাওয়াল ১৪৪৩

নির্বাচন বানচালের চেষ্টায় ঐক্যফ্রন্ট: আ’লীগ

মানিকগঞ্জ বার্তা

প্রকাশিত: ২৮ ডিসেম্বর ২০১৮  

জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নির্বাচন বানচালের চেষ্টা করছে বলে অভিযোগ করেছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ।

বৃহস্পতিবার আওয়ামী লীগের একটি প্রতিনিধি দল নির্বাচন কমিশনে এই অভিযোগ করে। তাদের দাবি, পাকিস্তানি গোয়েন্দা সংস্থা আইএসআই এই ষড়যন্ত্রের মূল সহযোগী।

প্রতিনিধি দলটি ইসি সচিব হেলালুদ্দীন আহমদের সঙ্গে দেখা করে এ বিষয়ে অভিযোগ জমা দেয়। আওয়ামী লীগের নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সদস্য আক্তারুজ্জামানের নেতৃত্বে প্রতিনিধি দলে আরও ছিলেন নির্বাচন সমন্বয়ক ড. সেলিম মাহমুদ, অ্যাডভোকেট নজিবুল্লাহ হিরো, জাফরুল শাহরিয়ার জুয়েল প্রমুখ।

পরে ইসির মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত প্রেস ব্রিফিংয়ে আক্তারুজ্জামান বলেন, শেখ হাসিনাকে ভোট দিতে দেশের মানুষ অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছে। নির্বাচনকে কেন্দ্র করে বিএনপি-জামায়াত অশুভ ষড়যন্ত্রে লিপ্ত রয়েছে। সন্ত্রাসী হামলা, সহিংসতা ও নৈরাজ্য করে নির্বাচনকে বানচাল করতে চায় বিএনপি-জামায়াত চক্র।

এ ছাড়া নকল ব্যালট পেপার ছাপিয়ে ও বুথ বানিয়ে ভোটের দিন বিএনপি-জামায়াত জাল ভোটের ভিডিওর গুজব ছড়াতে পারে বলেও কমিশনকে শঙ্কার কথা জানায় আওয়ামী লীগের প্রতিনিধি দল।

গত কয়েকদিনে রাজশাহী, ময়মনসিংহ, বগুড়া, খাগড়াছড়ি, সিরাজগঞ্জ ও গাইবান্ধাসহ বিভিন্ন জেলায় মহাজোট প্রার্থীদের-সমর্থকদের ওপর বিএনপি-জামায়াতের কর্মীরা হামলা করেছে— অভিযোগ করে আক্তারুজ্জামান দাবি করেন, এসব হামলায় তাদের ৪০ কর্মী আহত হয়েছেন। প্রার্থী, কর্মী-সমর্থকদের ওপর হামলার ঘটনার পাশাপাশি আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যদের ওপর হামলার ঘটনা ঘটেছে। ভাংচুর করা হয়েছে নির্বাচনী অফিসও।

সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য বিএনপি-জামায়াতের ‘সন্ত্রাসী কার্যক্রম ও ষড়যন্ত্র’ প্রতিহত করতে কমিশনের প্রতি অনুরোধ জানায় আওয়ামী লীগ। একই সঙ্গে আওয়ামী লীগ ও মহাজোট প্রার্থী-কর্মীদের ওপর ‘হামলার ঘটনায়’ জড়িতদের দ্রুত গ্রেফতার ও বিচারের দাবি তোলেন প্রতিনিধি দলের সদস্যরা।

আক্তারুজ্জামান জানান, এসব ঘটনায় কমিশন প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিয়ে অগ্রগতি অবহিত করবে বলে নির্বাচন কমিশন সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ জানিয়েছেন।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন নিয়ে বাংলাদেশে যুক্তরাষ্ট্র রাষ্ট্রদূতের বক্তব্যের বিষয়ে জানতে চাইলে আওয়ামী লীগের প্রতিনিধি দলের সদস্য ড. সেলিম মাহমুদ বলেন, যুক্তরাষ্ট্র একাত্তরের মহান মুক্তিযুদ্ধে বিরোধিতা করেছে। এমনকি সপ্তম নৌবহরও পাঠিয়েছিল। আটলান্টিক মহাসাগর পার হয়ে গেলে তাদের গণতন্ত্রের সংজ্ঞা বদলে যায়।