• রোববার   ২৩ জানুয়ারি ২০২২ ||

  • মাঘ ১০ ১৪২৮

  • || ১৯ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

হজে অংশগ্রহণকারীরা আইসোলেশনে

মানিকগঞ্জ বার্তা

প্রকাশিত: ২২ জুলাই ২০২০  

হজ ইসলামের পঞ্চ স্তম্ভের অন্যতম একটি। শারীরিক ও আর্থিকভাবে সক্ষম ব্যক্তির জন্য জীবনে একবার হজ করা ফরজ ইবাদত। 

সারা বিশ্ব থেকে প্রতি বছর প্রায় ২৫ লাখ লোক হজে অংশগ্রহণ করতো। কিন্তু এবারের হজ প্রাণঘাতী বৈশ্বিক মহামারি নভেল করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯) প্রাদুর্ভাবের কারণে মাত্র ১০ হাজার মানুষের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।

গত ১০-১৫ জুলাই ইলেক্ট্রনিক আবেদন প্রক্রিয়ায় ১৬০ দেশের নাগরিকদের এবারের হজে অংশগ্রহণকারীদের বাছাই করা হয়েছে।

সৌদি আরবে সোমবার জিলহজ মাসের চাঁদ দেখা যায়নি। সে হিসেবে আগামী ৩০ জুলাই অনুষ্ঠিত হবে পবিত্র হজ। ৩১ জুলাই অনুষ্ঠিত হবে কোরবানি। পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী এক সপ্তাহ আগে অর্থাৎ ১৯ জুলাই থেকে হজে অংশগ্রহণকারীদের আইসোলেশনের মাধ্যমে এবারের হজের কার্যক্রম শুরু হওয়ার কথা জানিয়েছেন সৌদি আরবের হজ ও ওমরাহ মন্ত্রণালয়। খবর আল-আরাবিয়া ডটনেট।

এক টুইটে হজ ও ওমরাহ মন্ত্রণালয় জানায়, স্বাস্থ্যবিধি অনুযায়ী এবার বিশেষ শর্তে মুসল্লিদের হজ পালনের সুযোগ দেয়া হয়েছে। হজ শুরুর আগে হজে অংশগ্রহণকারীরা প্রটোকল অনুযায়ী ৭ দিনের আইসোলেশনে রয়েছেন।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণের কারণে গত ২২ জুন এক ঘোষণায় সৌদি কর্তৃপক্ষ জানায়, দেশটি বসবাসকারী সব দেশের নাগরিকদের এবারের হজে সীমিত আকারে অংশগ্রহণের অনুমতি দেবে।

মহামারি করোনাভাইরাস যেন হজের সময় কারোর মধ্যে না ছড়ায় সে লক্ষ্যে বিভিন্ন সতর্কতামূলক পদক্ষেপ নিয়েছে সৌদি সরকার। পর্যাপ্ত স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার পাশাপাশি বিনা অনুমতিতে মক্কা ও এর আশপাশের এলাকায় প্রবেশের ওপর কড়া নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছে। যারা ২০ জুলাই থেকে ২ আগস্ট পর্যন্ত বিনা অনুমতিতে হজের রোকন অঞ্চলে প্রবেশ করবে তাদের জন্য ১০ হাজার রিয়াল জরিমানার ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। একাধিকবার প্রবেশ করলে এ জরিমানা দ্বিগুণ হবেও বলে জানিয়েছেন দেশটির দায়িত্বশীল প্রশাসন।

উল্লেখ্য যে, ৩০ জুলাই হজ সম্পন্নের প্রস্তুতিতে আগামী ২৯ জুলাই ইহরাম বেধে জোহরের আগেই মিনায় পৌঁছতে হবে হাজিদের। তার আগে হজে অংগ্রহণকারী সবাইকে পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী ৭ দিন আইসোলেশন করতে হবে। সে পরিকল্পনা বাস্তবায়নে ১৯ জুলাই থেকে আইসোলেশনের মাধ্যমে হজের কার্যক্রম শুরু হয়েছে।