• সোমবার   ১৫ আগস্ট ২০২২ ||

  • শ্রাবণ ৩১ ১৪২৯

  • || ১৭ মুহররম ১৪৪৪

দুই শিশু সন্তানকে ঘরে আটকে রেখে প্রবাসীর গর্ভবতী স্ত্রীকে গণধর্ষণ

মানিকগঞ্জ বার্তা

প্রকাশিত: ২৩ ডিসেম্বর ২০২১  

বৃহস্পতিবার ভোর রাতে বান্দরবানের লামা উপজেলার রূপসী পাড়া ইউনিয়নের বৈদ্দ্যভিটা এলাকায় দুই শিশু সন্তানকে ঘরে আটকে রেখে এক প্রবাসীর গর্ভবতী স্ত্রীকে শারীরিক নির্যাতন ও গণধর্ষণের ঘটনার অভিযোগ পাওয়া গেছে। 
লামা থানার সাব ইন্সপেক্টর মোল্লা রমিজ জাহান জুম্মা গৃহবধূর উপর নির্যাতনের সত্যতা স্বীকার করে জানান, স্থানীয়দের কাছ থেকে খবর পেয়ে তারা ঘটনাস্থলে এসে ভিকটিমকে উদ্ধার করে এবং তাকে চিকিৎসার জন্য বান্দরবান সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়। 

তিনি জানান, প্রাথমিক তদন্তে গৃহবধূর উপর শারীরিক নির্যাতনের আলামত পাওয়া গেছে। তবে গণধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে কি না এ বিষয়ে সুনির্দিষ্ট করে কোনো মন্তব্য করতে তিনি রাজি হননি। 

সাব ইন্সপেক্টর জুম্মা জানান, ডাক্তারি পরীক্ষার পর ধর্ষণ সম্পর্কে বিস্তারিত জানা যাবে। 
গৃহবধূ পুলিশকে জানায়, রাত ২টার দিকে প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে ঘর থেকে বের হবার সাথে সাথেই কয়েকজন দুর্বৃত্ত তাকে মারধর করে এবং রশি দিয়ে বেঁধে ফেলে। এসময় ঘর থেকে তার দুই শিশু সন্তান কান্না করলে দুর্বৃত্তরা তাদেরকে একটি ঘরে আটকে রেখে তাদের মা এর উপর শারীরিক নির্যাতন চালায়। তিনি অভিযোগ করেন, বেশ কয়েকজন রাতভর তাকে ধর্ষণ করে। 

লামা থানার ওসি শহিদুল ইসলাম চৌধুরী জানান, বিষয়টি তদন্ত করে অতি দ্রুত দোষীদের চিহ্নিত করে আইনের আওতায় নিয়ে আসা হবে।
বৃহস্পতিবার বিকেলে বান্দরবান সদর হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, নির্যাতিতা নারীকে এই হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে রেখে চিকিৎসা সেবা দেওয়া হচ্ছে।