• মঙ্গলবার   ০৫ জুলাই ২০২২ ||

  • আষাঢ় ২১ ১৪২৯

  • || ০৬ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৩

একনজরে নতুন শিল্পমন্ত্রী মাহমুদ হুমায়ূন

মানিকগঞ্জ বার্তা

প্রকাশিত: ৭ জানুয়ারি ২০১৯  

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের পর হয়েছে নতুন মন্ত্রিপরিষদ। আর এ মন্ত্রিপরিষদকে ঘিরে আগ্রহের কমতি ছিল না মানুষের। নতুন এ মন্ত্রিপরিষদে বাংলাদেশ সরকারের শিল্প মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পাচ্ছেন নরসিংদী-৪ (মনোহরদী-বেলাব) আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন।

১৯৯৬ সালের পর নরসিংদী-৪ (মনোহরদী-বেলাব) আসনের মানুষ আবারও মন্ত্রী পেল। রোববার বিকালে আনুষ্ঠানিকভাবে নতুন সরকারের মন্ত্রিসভার সদস্যদের নাম ঘোষণা করেছেন মন্ত্রীপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম। পরে সোমবার বিকাল সাড়ে তিনটায় বঙ্গভবনে নতুন মন্ত্রিসভার শপথ অনুষ্ঠিত হবে। রাষ্ট্রপতি মো. আব্দুল হামিদ শপথ বাক্য পাঠ করাবেন বলে জানানো হয়।

আওয়ামী লীগ সূত্রে জানা যায়, ৬০ এর দশকে পাকিস্তানের স্বৈরচারী শাসক আইয়ূব-মোনায়েম বিরোধী আন্দোলনের সংগ্রামী ছাত্রনেতা রাজপথের সাহসীযোদ্ধা অ্যাডভোকেট নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন।

১৯৬৬ সালে ৬ দফা আন্দোলনসহ ঐতিহাসিক ৭ই জুনের মিছিলেও তিনি ছিলেন অগ্রভাগে। ৬৯ এর গণ অভূত্থানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র হিসেবে তার অগ্রণী ভূমিকা ছিল।

যুবলীগের প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকেই অ্যাডভোকেট নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন যুবলীগের একজন কেন্দ্রীয় নেতা হিসেবে নেতৃত্ব দেন। ১৯৭৫ এর ১৫ আগষ্ট বঙ্গবন্ধুকে স্বপরিবারে নির্মম হত্যাকাণ্ডের পর তিনি যুবলীগকে সংগঠিত করে প্রতিরোধ আন্দোলন গড়ে তুলতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন। ছিলেন যুবলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি।

১৯৮৬ সালে আওয়ামী লীগ থেকে মনোনীত প্রার্থী হিসেবে নরসিংদী ০৪ (মনোহরদী-বেলাব) আসন থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। পরবর্তীতে ২০০৮ সালে নবম ও ২০১৪ সালে ১০ম জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও তিনি সংসদ সদস্য হিসেবে নির্বাচিত হন।

নবম জাতীয় সংসদে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ১০ম জাতীয় সংসদে দীর্ঘদিন প্রবাসী কল্যান ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি ও বর্তমানে বাণিজ্য মন্ত্রনালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

সরকারের উন্নয়নের সঙ্গে তাল মিলিয়ে সংসদীয় এলাকা মনোহরদী-বেলাবতে করেছেন ব্যাপক উন্নয়ন। সর্বশেষ একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তিনি বিপুল ভোটে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন।

বর্ষীয়ান এ রাজনীতিবিদ এমপি হুমায়ূনের দলীয় অবদান মূল্যায়ন করে নরসিংদী থেকে তাকে মন্ত্রী বানানোর জন্য আওয়ামী লীগের সভানেত্রী শেখ হাসিনার কাছে জোর দাবি জানিয়েছিল স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও সুশীল সমাজের প্রতিনিধিসহ জেলার সর্বস্তরের বাসিন্দারা।

তাদের এই প্রত্যাশা পূরণ হওয়ায় প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন জেলার সর্বস্তরের মানুষ।

মনোহরদী পৌরসভার মেয়র আমিনুর রশিদ সুজন বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে অশেষ কৃতজ্ঞতা নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন এমপিকে যথাযথ মূল্যায়ন করার জন্য। এতে মনোহরদী বেলাববাসীর দীর্ঘদিনের আকাঙ্খা পূরণ হয়েছে।

বেলাব উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শমসের জামান ভূঞা রিটন বলেন, পূর্ণমন্ত্রী করে হুমায়ূন ভাইকে রাজনৈতিকভাবে যথাযথ মূল্যায়ন করা হয়েছে। কারণ আওয়ামী লীগের তার ত্যাগ-তিতীক্ষা অপরিসীম। উনি ছিলেন আমাদের মনোহরদী বেলাব এলাকার আওয়ামী লীগের দুঃসময়ের নৌকার মাঝি।

রোববার বিকালে বিষয়টি নিশ্চিত করেন নরসিংদী-৪ মনোহরদী-বেলাবরের সংসদ সদস্য নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন বলেন, আল্লাহ তায়ালার দরবারে অশেষ শুকরিয়া। কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি মাননীয় দেশনেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে। পাশাপাশি কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি আমাদের মনোহরদী ও বেলাব এলাকার প্রত্যেকটি জনগণকে। তাদের ভালোবাসায় আমি বিপুল ভোটে চতুর্থবারের মতো সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছি।