• মঙ্গলবার   ০৬ ডিসেম্বর ২০২২ ||

  • অগ্রাহায়ণ ২২ ১৪২৯

  • || ১৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

ঘিওরে দেশীয় অস্ত্রসহ সাংবাদিক আটক

মানিকগঞ্জ বার্তা

প্রকাশিত: ২৬ জুন ২০২২  

মানিকগঞ্জের ঘিওরে দেশীয় অস্ত্রসহ এশিয়ান টিভির উপজেলা প্রতিনিধি সোহেল রানা গিনিকে আটক করেছে পুলিশ। শনিবার (২৫ জুন) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলা পরিষদ চত্ত্বর থেকে তাকে আটক করা হয়। আটক সোহেল রানা ঘিওর উপজেলার মাষ্টারপাড়া এলাকার ফজলুল ভূইয়ার ছেলে। এ ঘটনায় থানায় তার বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের হয়েছে।


পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীদের সূত্রে জানা গেছে, শনিবার সকালে ঘিওর উপজেলা পরিষদ চত্ত্বরে পদ্মা সেতুর উদ্বোধন উপলক্ষে চলমান অনুষ্ঠানে সোহেল রানা একটি দেশীয় অস্ত্র (ড্যাগার) নিয়ে উত্তেজনা সৃষ্টি করে। তার এমন কর্মকাণ্ডে অনুষ্ঠানস্থলে ভীতির সৃষ্টি হয়। বয়স্ক মুক্তিযোদ্ধা, স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীরা দিকবিদিক ছুটাছুটি করে অনুষ্ঠান ত্যাগ করতে থাকে। পরে পুলিশ তার কাছ থেকে অস্ত্রটি উদ্ধার করে তাকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।

স্থানীয়ভাবে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, সকালে ধলেশ্বরী নদীর তীরে উপজেলা যুবলীগের উপ-প্রচার সম্পাদক আমিনুর রহমানের সঙ্গে ড্রেজার সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে সোহেল রানার সঙ্গে তর্কাতর্কি হয়। পরে আমিনুর ঘটনাস্থল ত্যাগ করে উপজেলা চত্ত্বরে পদ্মা সেতুর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যোগ দেন। এ সময় সোহেল রানা তাকে মারার জন্য দেশীয় ধারাল অস্ত্র উঁচিয়ে উপজেলা পরিষদ চত্ত্বরে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করে।

ঘিওর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হামিদুর রহমান বলেন, পদ্মা সেতুর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য চলছিল। অনুষ্ঠানে স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থী, মুক্তিযোদ্ধাসহ  উপজেলার সর্বস্তরের লোকজন অংশ নেন। এসময় সোহেল রানা ধারাল অস্ত্র নিয়ে অনুষ্ঠানস্থলে এসে আতঙ্ক সৃষ্টি করে। তার এমন কর্মকাণ্ডে অনেক শিক্ষার্থী ও বয়স্করা ভীতসন্ত্রস্ত হয়ে অনুষ্ঠানস্থল ত্যাগ করেন। পরে পুলিশ তাকে আটক করে নিয়ে যায়। একজন সাংবাদিকের এমন আচরণ খুবই দুঃখজনক। আমি আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীকে অনুরোধ করেছি তার বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় আইনি ব্যবস্থা নেওয়ায় জন্য।

এ ব্যাপারে ঘিওর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রিয়াজ উদ্দিন আহমেদ বিপ্লব জানান, এ ঘটনায় সোহেলের বিরুদ্ধে দেশীয় অস্ত্র আইনে মামলা রুজু হয়েছে। আজ রবিবার সকালে তাকে কোর্টহাজতে পাঠানো হবে।