• বৃহস্পতিবার   ০৬ অক্টোবর ২০২২ ||

  • আশ্বিন ২১ ১৪২৯

  • || ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

২৪ ঘণ্টায় চার্জশিট, সাড়ে তিন মাসে ফাঁসির রায়

মানিকগঞ্জ বার্তা

প্রকাশিত: ২৯ আগস্ট ২০২২  

মানিকগঞ্জের সাটুরিযায় ধানকাটা শ্রমিক আরিফ হোসেন হত্যা মামলায় একমাত্র আসামি মানিক ওরফে হৃদয়কে (২৫) মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। একইসঙ্গে তাকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

সোমবার (২৯ আগস্ট) দুপুরে মানিকগঞ্জের দায়রা জজ আদালতের বিচারক সিনিয়র দায়রা জজ জয়শ্রী সমদ্দার এ রায় দেন। হত্যাকাণ্ডের ঘটনার মাত্র ৩ মাস ১৪ দিন পর রায় ঘোষণা হলো। এর আগে এ ঘটনা তদন্ত শেষে মাত্র ২৪ ঘণ্টার মধ্যে আসামির বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশিট দেয় সাটুরিয়া থানা পুলিশ।

ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি মানিক ও ওরফে হৃদয় মানিকগঞ্জের দৌলতপুর উপজেলার ব্রামন্দি গ্রামের মেহের আলী শেখের ছেলে।

মামলার সংক্ষিপ্ত বিবরণে জানা যায়, আসামি মানিক ওরফে হৃদয় এবং একই এলাকার বাসিন্দা আরিফ ধানকাটা শ্রমিক ছিলেন। চলতি বছরের ১২ মে মানিকগঞ্জ বাসস্ট্যান্ড থেকে তারা ধামরাই থানার দ্বিমুখা গ্রামের ইউনূছ আলীর বাড়িতে ধান কাটা শ্রমিক হিসেবে কাজ করতে যান। ১৬ মে তারা দু’জনেই সাটুরিয়া থানাধীন গর্জনা এলাকায় ধান কাটছিলেন। দুপুরে আরিফ খেতের পাশে সেচঘরে বিশ্রাম করছিলেন। এ সময় পূর্বশত্রুতার জের ধরে আসামি হৃদয় ধান কাটার কাস্তে দিয়ে আরিফের গলা কেটে দৌড়ে পালানোর চেষ্টা করেন। এ সময় আশপাশের শ্রমিকরা ঘটনা টের পেয়ে আরিফকে ধরে পুলিশে দেয়।

হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় নিহতের বাবা বাদী হয়ে ওই দিনই সাটুরিয়া থানায় মামলা দায়ের করেন। ঘটনা তদন্ত শেষে মাত্র ২৪ ঘণ্টার মধ্যে আসামির বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশিট দেয় সাটুরিয়া থানা পুলিশ।

রায় ঘোষণার সময় আসামি আদালতে উপস্থিত ছিলেন। রাষ্ট্রপক্ষে মামলা পরিচালনা করেন অ্যাডভোকেট মো. আব্দুস সালাম। আসামি পক্ষের আইনজীবী ছিলেন আবুল কাশেম মো. কাইসার।